♦♦ সারা দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ২১ জনের মৃত্যু হয়েছে। নতুন করে শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৯৭৫ জন। ♦♦ করোনা উপসর্গ দেখা দিলে অথবা করোনা বিষয়ক জরুরি স্বাস্থ্যসেবা পেতে ৩৩৩ অথবা ১৬২৬৩ নম্বরে কল করুন এবং তথ্য পেতে www.corona.gov.bd ওয়েবসাইটে ভিজিট করুন।। এ ছাড়া আইইডিসিআরের ইমেইল বা ১৬২৬৩ নম্বরে ফোন করা যাবে। ♦♦ www.livecoronatest.com এ আপনি ঘরে বসেই কোভিড-১৯ বা নভেল করোনা ভাইরাস দ্বারা আক্রান্ত কি'না, তা নিজেই মূল্যায়ন করতে পারবেন। এমনকি আপনার ঝুঁকির মাত্রা ও করনীয় সম্পর্কেও জানতে পারবেন।

চলচ্চিত্র, বাংলাদেশ, বিনোদন

ডিভোর্স প্রসঙ্গে যা বললেন অপূর্ব-অদিতি

নভেল করোনাকালে যখন সবকিছু স্থবির, এরমধ্যেই কিনা ভেঙে গেল অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্ব ও নাজিয়া হাসান অদিতির সংসার।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দীর্ঘ ৯ বছরের সংসার ভেঙে যাওয়ার খবর নিশ্চিত করেছেন নাজিয়া। অবশেষে এ নিয়ে মুখ খুলেছেন অপূর্বও।

রোববার দিবাগত রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফেসবুকে অপূর্ব লেখেন, আমাদের যাত্রাটি ছিল দুর্দান্ত। আমরা নয় বছর একে অপরের সবকিছু ভাগ করে নিয়েছি। বিচ্ছেদটা আমাকে কিছুটা হতবাক করে দিয়েছে। যদিও আমরা নিজের জন্য চেয়েছিলাম। তবে দুঃখের বিষয় এখানেই আজ আমাদের জীবন এনে দিয়েছে।

তিনি আরও জানান, এত বছর যাবত আমরা এক সাথে ছিলাম, সে সর্বদায় এই বছরগুলো আমার দুর্দান্ত অংশীদার এবং সত্যিকারের শুভাকাঙ্ক্ষী ছিলো। আমার অনেক সাফল্যের পেছনে মূল ভূমিকা পালন করেছে। সে সত্যিই একজন আশ্চর্য ব্যক্তি, একজন আত্মবিশ্বাসী উদ্যোক্তা এবং সর্বোপরি অত্যন্ত দয়ালু এবং মানবিক ব্যক্তি।

সন্তান প্রসঙ্গে অপূর্ব লেখেন, আমার ক্যারিয়ারের অনেক অর্জন। তবুও আমার সর্বকালের সবচেয়ে বড় অর্জন সর্বদা থাকবে আমাদের ছেলে আয়াশ। পিতৃত্বের এই দুর্দান্ত উপহারের জন্য আমি নাজিয়াকে পর্যাপ্ত পরিমাণে ধন্যবাদ জানাতে পারব না। তিনি আমার সন্তানের অনুকরণীয় মা হয়েছেন এবং আমাদের ছেলের প্রতিপালনের অংশীদার হিসাবে আমাদের যাত্রা সর্বদা অব্যাহত থাকবে।

সহকর্মী ভক্তদের উদ্দেশে তিনি লেখেন, বিয়ের মতো বিষয়টি ভয়ঙ্কর, বিয়ে ভেঙে যাওয়ায় অনেক প্রশ্ন। সবাইকে অনুরোধ করব আমাদের জন্য আপনারা দোয়া করবেন, আমি এবং নাজিয়া যেন কঠিন সময়গুলো পার করতে পারি। দয়া করে আমাদের তিনজনকেই আপনারা দোয়া করবেন। আপনাকে সকলকে ধন্যবাদ এবং আল্লাহ আমাদের সকলকে মঙ্গল করুন।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নাজিয়া হাসান অদিতি লেখেন, অপূর্ব একজন অমায়িক বাবা, ভাই, দায়িত্বশীল পুত্র এবং একজন ভাল মানুষ। লাখও ভক্তদের কাছে তিনি অসম্ভব মেধাবী, যা তিনি নিজেই অর্জন করেছেন। তিনি যে অবস্থানে আছেন, তার যোগ্য তিনি। দয়া করে তাকে তার ব্যক্তিগত জীবন দিয়ে নয়, তার অসাধারণ কাজগুলো দিয়ে বিচার করুন।

অদিতি আরও জানান, দুর্ভাগ্যক্রমে আমরা কিছু কারণে একসাথে থাকছি না তবে আমি তার জন্য সুখী ও সমৃদ্ধ জীবন কামনা করছি। তিনি আমাকে সেরা উপহার হিসেবে পুত্র আয়াশকে দিয়েছেন। ডিভোর্সের সিদ্ধান্তের জন্য দয়া করে আমাদের কাউকে ভুল বুঝবেন না। আপনারা যেভাবে আমাদের ভালবাসা দিয়ে এসেছেন এবং সমর্থন করেছেন, আশা করি তা অব্যাহত রাখবেন। সেইসাথে কোনো ভিত্তিহীন সংবাদে যে সাংবাদিকরা বিভ্রান্ত না হন সে বিষয়েও অনুরোধ জানান তিনি।

ফই//

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

LIVE


বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশ

আক্রান্ত
৩৫৫৮৫
সুস্থ
৭৩৩৪
মৃত্যু
৫০১
সূত্র:আইইডিসিআর

বিশ্ব

আক্রান্ত
৫৫৫৪৫০৪
সুস্থ
২৩৩১৫৯৭
মৃত্যু
৩৪৮১৪১
সূত্র: ওয়ার্ল্ড মিটার
ঈদের ইতিহাস
ঘূর্ণিঝড়ের নাম যেভাবে রাখা হয়
ঘূর্ণিঝড়ের সংকেত ও এর অর্থ
বারবার হাত ধোয়ার কারণে ত্বক শুকিয়ে গেলে যা করবেন