34 C
Dhaka
বৃহস্পতিবার, জুলাই ১৮, ২০২৪
spot_imgspot_img

ফ্রান্সকে হারিয়ে ইউরোর ফাইনালে স্পেন

জার্মানির ফুটবল অ্যারেনা মুনশেনে মঙ্গলবার রাতে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে সেমিফাইনালে ফ্রান্সকে ২-১ গোলে হারিয়ে ফাইনালে গেল স্পেন। ম্যাচের প্রথমার্ধেই হয় গোল তিনটি। ফ্রান্সকে রেন্ডাল কোলো মুয়ানি এগিয়ে দিলেও চার মিনিটের ব্যবধানে লামিনে ইয়ামাল ও দানি ওলমোর গোলে জয় পায় স্প্যানিশরা।

ফ্রান্সের বিপক্ষে সেমিফাইনালের ম্যাচ শুরুর আগেই অবশ্য স্পেনকে ইউরোর শিরোপার সবচেয়ে বড় দাবিদার বলে মানছিলেন বেশিরভাগ ফুটবল বিশেষজ্ঞ।

সেমিফাইনালে শুরুতেই গোলের উৎসবে মাতে দুই দল। সঙ্গে মাতিয়ে তোলে গ্যালারি। ম্যাচের ৮ মিনিটে লিড নেয় রাশিয়া বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন ও কাতার বিশ্বকাপের রানার্স আপ ফ্রান্স। কিলিয়ান এমবাপ্পের ক্রসে রান্দাল কোলো মুয়ানির দারুণ হেডে এগিয়ে যায় দিদিয়ের দেশমের দল। 

পরেই সমতায় ফেরে স্পেন। ম্যাচের ২১ মিনিটে গোল করেন লামিন ইয়ামাল। স্ট্রাইকার আলভারো মোরাতার পাসে গোলটা হলেও পুরো কৃতিত্ব পাবেন ১৭ বছর বয়সের প্রান্তে থাকা ইয়ামাল। বাঁ-পায়ের মাপা এবং দুর্দান্ত এক শটে ফ্রান্স গোলরক্ষক মাইক ম্যাইগন্যানকে দর্শক বানিয়ে জালে বল পাঠান তিনি। 

পরেই লিড নিয়ে নেয় স্পেন। ম্যাচের ২৫ মিনিটে গোল আসে স্পেনের নাম্বার টেন দানি অলমোর পা থেকে। জেসুস নাভাসের ক্রস গোলমুখ থেকে হেড করে ফিরিয়ে দেয় ফ্রান্স। বক্সে দারুণ দক্ষতায় বল নিয়ন্ত্রণে নেন আরবি লাইপজিগে খেলা প্লে মেকার অলমো। শূন্যে থাকা বল ঘুরিয়ে মুহূর্তে জোরের ওপর শট নিয়ে জালে পাঠিয়ে দেন তিনি। 

পরের সময়টা গোলের চেষ্টা করে গেছে ফ্রান্স। আক্রমণও বেশি করেছে তারা। কিন্তু স্পেনের গোলরক্ষক উনাই সিমনকে বড় পরীক্ষা নেওয়ার মতো শট ছিল না। স্প্যানিশদের ‘ফেক প্রেসিংয়ে’ অর্থাৎ পায়ে বল রেখে ছোট পাসে আক্রমণে উঠে ফ্রান্সের বক্সের মুখ থেকে আবার ব্যাক পাসে বল ফিরিয়ে বাকি সময়টা কাটিয়ে দিয়েছে লা ফুয়েন্তের দল। 

spot_img
spot_img

আরও পড়ুন

spot_img

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

বিশেষ প্রতিবেদন