অর্থনীতি, বাংলাদেশ

বাজেটে দ্বিগুন হতে পারে সিগারেটের মূল্য

আসন্ন ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে সিগারেটের সর্বনিম্ন মূল্য ৯ টাকা করার প্রস্তাব করেছে স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়। ১০ মে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালকে লেখা এক চিঠিতে এ প্রস্তাব করেন স্বাস্থমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

 

তারই সাথে বেনসন, গোল্ডলিফসহ সমমানের সিগারেটের প্রতি শলাকার মূল্য ৮ টাকা বৃদ্ধি করার প্রস্তাব করা হয়েছে। বর্তমানে বাজারে বেনসন সিগারেটের মূল্য ১২ টাকা ও গোল্ডলিফ এর মূল্য ৮ টাকা। প্রস্তাবটি গৃহীত হলে বেনসনের প্রতি শলাকার দাম হবে ২০ টাকা ও গোল্ডলিফের প্রতি শলাকার দাম হবে ১৬ টাকা। অর্থাৎ, ক্ষেত্রবিশেষে সিগারেটের মূল্য দ্বিগুন হয়ে যেতে পারে।

 

মূল্য বৃদ্ধির সাথে সিগারেট ও তামাকজাত পণ্যের শুল্ক কাঠামোতেও পরিবর্তনের প্রস্তাব করা হয়েছে। বর্তমানে সিগারেটের শুল্কের ক্ষেত্রে চারটি স্তর রয়েছে। এটি পরিবর্তন করে দুইটি করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। নিম্ন ও মধ্যম শ্রেণীকে একত্রিত করে একটি ও উচ্চ ও প্রিমিয়ায় শ্রেণীকে একত্রিত করে আরেকটি স্তর করার কথা বলা হয়েছে। নিম্নস্তরের ১০ শলাকার মূল্য ৫০ টাকা করে ৬০ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক এবং উচ্চ স্তরের প্রতি ১০ শলাকার মূল্য ১০৫ টাকা করে ৬৫ শতাংশ সম্পুরক শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে। একই সাথে সিগারেটের প্রতি শলাকায় ৫ টাকা হারে সুনির্দিষ্ট সম্পুরক শুল্ক আরোপের কথাও বলা হয়েছে।

 

বিড়ির ক্ষেত্রে মূল্য বিভাজন তুলে দিতে বলা হয়েছে। ফিল্টারযুক্ত বিড়ির ক্ষেত্রে ২০ শলাকার মূল্য ২৮ টাকা এবং ফিল্টারবিহীন বিড়ির ২৫ শলাকার মূল্য ৩৫ টাকা করে উভয় ক্ষেত্রে ৪৫ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক আরোপ করার প্রস্তাব করা হয়েছে। এছাড়াও ৪ টাকা ৮০ পয়সা সুনির্দিষ্ট শুল্ক আরোপের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।

 

ধোঁয়াবিহীন তামাকপণ্যের ওপরও ৪৫ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক আরোপের পাশাপাশি ১০ গ্রাম জর্দার মূল্য ৩৫ টাকা এবং গুলের মূল্য ২০ টাকা করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। একই সাথে ট্যারিফ ভ্যালু বাদ দিয়ে সিগারেটের মত খুচরা মূল্যের ভিত্তিতে করারোপ করতে বলা হয়েছে। জর্দা ও গুলের ওপর যথাক্রমে ৫ টাকা ও ৩ টাকা সুনির্দিষ্ট শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে।

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক ২০৪০ সালের মধ্যে তামাকমুক্ত দেশ গড়ার লক্ষ্য অর্জনের জন্য শুল্ক কাঠামো পরিবর্তনের এসব প্রস্তাব করা হয়। চিঠিতে স্বাস্থ্যমন্ত্রী ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে এসব প্রস্তাব বিবেচনার জন্য অর্থমন্ত্রীর ব্যক্তিগত হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

 

আনাআ/মাও/জাআ
LIVE
Play
রাইড শেয়ারিংয়ের অর্থনীতি
প্রাণি নির্যাতন- মানুষ নির্যাতনের প্রাথমিক পর্যায়
প্রতিরোধ করো!
আজি হতে শতবর্ষ আগে