বাংলাদেশ, শীর্ষ খবর ,

সড়কপথে ভোগান্তিতে মন্ত্রীর দুঃখ প্রকাশ

ঈদযাত্রায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে যাত্রীদের ভোগান্তির শেষ নেই। রওনা দিয়েছেন শনিবার সকাল সাতটায়, বঙ্গবন্ধু সেতু পার হয়ে সিরাজগঞ্জ বা তার আশপাশের জেলায় বাড়িতে পৌঁছেছেন রাত ১১টায়। রোববারও দেখা গেছে একই চিত্র।

 

মহাসড়কে ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থেকে অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। এতোসব ভোগান্তি থেকে মুক্তি পায়নি কেউই।

 

এমন পরিস্থিতিতে আজ (রোববার) দুঃখ প্রকাশ করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ‘এজন্য আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিত৷ মন্ত্রী হিসেবে এর দায় আমি এড়তে পারি না ৷ তবে এটা সারা দেশের চিত্র না। দুপুরের পর ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হয়ে যাবে।’

 

তবে দেশের অন্য সড়কগুলোতে ঈদযাত্রা এবার স্বস্তিদায়ক বলে দাবি করেছেন ওবায়দুল কাদের। ‘সারা দেশের চিত্র কিন্তু এক রকম না ৷ ঢাকা-চট্রগ্রাম, ঢাকা-সিলেট, দেশের দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চলের রুটে যানজট, দুর্ভোগ নেই ৷ শুধুমাত্র একটি রুট, ঢাকা-টাঙ্গাইল রুটে যানজট আছে।’

 

ঈদযাত্রার শেষ দিন রোববার রাজধানীর সায়েদাবাদের সড়ক ও জনপথ মোড়ে ভিজিলেন্স টিমের কার্যক্রম পরিদর্শনে গিয়ে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন কাদের।

 

টাঙ্গাইলের পুলিশ বলছে, ঢাকা-গাজীপুরসহ বিভিন্ন এলাকার গাড়ি এলেঙ্গা পর্যন্ত আসছে চার লেন দিয়ে। কিন্তু এলেঙ্গা থেকে সড়ক দুই লেনের। ফলে সেখানে গাড়ির জট তৈরি হচ্ছে।

 

শনিবার মহাখালী আন্তঃজেলা বাস টার্মিনাল পরিদর্শনে গিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেছিলেন, ঢাকা-টাঙ্গাইল সড়কে যানজটের কোনো তথ্য তার কাছে নেই। তবে সেখানে যানবাহন চলছে ধীর গতিতে।

 

শাই

LIVE
Play
ছুটিতে ওবামা যে বইগুলো পড়বেন
বাণিজ্যযুদ্ধের লাভ-ক্ষতি
৭০ বছরের পুরোনো ভূতুড়ে ছবির রহস্য!
উসাইন বোল্টের গতির তুলনা!