33 C
Dhaka
সোমবার, জুলাই ১৫, ২০২৪
spot_imgspot_img

‘গণমাধ্যমকে ভয় দেখানোর চেষ্টায় যুক্তরাষ্ট্রের আপত্তি রয়েছে’

বাংলাদেশে অনুসন্ধানমূলক সাংবাদিকতার প্রতি দৃঢ় সমর্থন থাকার কথা জানালো যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের নিয়মিত ব্রিফিংয়ে, উঠে এসেছে বিষয়টি। দপ্তরের মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার বলেন, গণমাধ্যমকর্মীদের বাধা দেয়া বা ভয় দেখানোর চেষ্টায়, যুক্তরাষ্ট্রের আপত্তি রয়েছে।

পুলিশের সাবেক আইজি বেনজীবর আহমেদ, বিপুল অর্থ-বিত্তের মালিক। শত শত একর জমি কিনেছেন জোরপূর্বক, গড়ে তুলেছেন রিসোর্ট, যা এখন দেশজুড়ে আলোচিত। আরেক আমলা-মতিউর রহমানের বিপুল সম্পদের খবরেও তোলপাড় গোটা দেশ।

বিপুল অর্থ-বিত্ত গড়ায়, সংবাদের শিরোনাম হয়েছেন সাবেক ও বর্তমান আরও বেশকিছু সরকারি কর্মকর্তা। সহকর্মীদের সম্পদের তথ্য ফাঁস হওয়ার পর অস্বস্তিতে তাদের একাংশ। বিষয়টি নিয়ে বিবৃতি দিয়েছে পুলিশ সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশন। আর পাল্টা বিবৃতি দিয়েছে সাংবাদিকদের বিভিন্ন সংগঠন।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের নিয়মিত প্রেস ব্রিফিংয়ে, উঠে এসেছে বিষয়টি। এক প্রশ্নের জবাবে, নিজেদের অবস্থান জানান দপ্তরটির মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার।

তার ভাষ্যমতে, রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানগুলোতে গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত রাখতে সরকারের স্বচ্ছতা প্রচারে একটি মুক্ত ও স্বাধীন গণমাধ্যমের ভূমিকাকে আমরা দূঢ়ভাবে সমর্থন করি। এক্ষেত্রে গণমাধ্যমকর্মীদের গুরুত্বপূর্ণ কাজে বাধা দেয়া বা ভয় দেখানোর যেকোনো প্রচেষ্টায় যুক্তরাষ্ট্রের আপত্তি রয়েছে।

বাংলাদেশের সাংবাদিকদের অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থনের কথাও জানান ম্যাথিউ মিলার।

তিনি আরও বলেন, কার্যকর গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া বজায় রাখতে এবং সরকারের স্বচ্ছতা প্রচারে মুক্ত ও স্বাধীন গণমাধ্যমের ভূমিকাকে আমরা দৃঢ়ভাবে সমর্থন করি। গুরুত্বপূর্ণ কাজ পরিচালনায় সাংবাদিকদের বাধা দেয়ার জন্য তাদের হয়রানি বা ভয় দেখানোর যেকোনো প্রচেষ্টায় আমরা আপত্তি জানাই।

পুলিশ কর্মীদের এমন বিবৃত্তি- ‘উটপাখির মতো বালিতে মুখ গুঁজে’ রাখার চেষ্টা বলে মন্তব্য করেছে টিআইবি। দুর্নীতিবিরোধী সংস্থাটি বলছে, এটি পুলিশ বাহিনীর একাংশের দুর্নীতির সুরক্ষা প্রদানের অপচেষ্টা।

spot_img
spot_img

আরও পড়ুন

spot_img

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

বিশেষ প্রতিবেদন