32 C
Dhaka
মঙ্গলবার, জুলাই ১৬, ২০২৪
spot_imgspot_img

বড় পরাজয়ে বিশ্বকাপ থেকে বিদায়ের পথে বাংলাদেশ

সুপার এইটে টানা দুই ম্যাচে হেরে সেমিফাইনালের দৌড় থেকে ছিটকে গেছে বাংলাদেশ এন্টিগায় ভারতের দেয়া ১৯৭ রানের টার্গেটে খেলতে নেমে টাইগাররা তুলতে পারে মাত্র ১৪৬ রান। বড় লক্ষ্য হলেও ব্যাটিং ছিল বেশ ধীরগতির, ছিলো না আগ্রাসী হওয়ার চেষ্টাটুকুও।

সুপার এইটের একটা এশিয়ান ব্যাটেল। ৫০ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। অ্যান্টিগায় টস জিতেও হাতে ব্যাট নয় শান্তর পছন্দ ফিল্ডিং। আর টাইগার বোলারদের কচুকাটা করে ভারতের ১৯৬ রানের পাহাড়সম পুঁজি। বাংলাদেশ থেমেছে মাত্র ১৪৬ রানেই।

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে রোহিত-ভিরাটের দারুন এক শুরু। এলোমেলো টাইগার বোলিং লাইন আপ।

চতুর্থ ওভারে রোহিতের মিসটাইমিং। আর তাতেই প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সাকিবের ৫০ উইকেট।

পাওয়ার প্লেতে ম্যান ইন ব্লুদের ৫৩ রান। এরপর তানজিম সাকিবের অ্যাগ্রেশন। নবম ওভারে টাইগার পেসার তুলে নেন জোড়া উইকেট। প্রথমে ভিরাটকে দারুন এক স্লোয়ারে বোল্ড করেন তানজিম সাকিব। ততক্ষণে ভিরাট হয়ে গেছেন টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি রানের মালিক। পেছনে ফেলেছেন নিজের ওপেনিং পার্টনার রোহিতকে। কোহলির বিদায়ের পর ফিরে যান সুরিয়াকুমার যাদব। এক্সট্রা বাউন্সে পরাস্ত হয়ে ধরা পড়েন লিটনের হাতে।

দ্রুত ২ উইকেট হারালেও দলকে চাপে পড়তে দেয়নি রিশাভ পর্যন্ত। রানের চাকা বেশ জোরেসোরেই চালিয়ে নিচ্ছিলেন এই বাঁহাতি ব্যাটার। তবে রিশাভকে উপড়ে নেন রিশাদ। ৩৬ রানে কাটা পড়েন রিভার্স সুইপ করতে গিয়ে।

রিশাদের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত হন শিভাম দুবে। ৩৪ রানে দুবে ফিরলেও বড় সংগ্রহের ভিত পেয়ে যায় ভারত। ২৭ বলে ফিফটি তুলে নিয়ে ২০ ওভার শেষে হার্দিক পান্ডিয়া ভারতীয় স্কোরবোর্ডে এনে দেন ১৯৬ রানের চ্যালেঞ্জিং টোটাল।

ব্যাটিংয়ে নেমে টাইগারদের আসর সেরা ওপেনিং পার্টনারশীপ। লিটন-তামিম মিলে তোলেন ৩৫ রান। মিসটাইমিংয়ে ফেরেন লিটন দাস।

দলীয় ৬৬ রানে ফেরেন আরেক ওপেনার তানজিদ তামিম। ততক্ষনে থমকে গেছে রানের চাকা। ১৯৭ রানের বড় টার্গেট অথচ ব্যাটিং এপ্রোচ মোটেও ছিলনা টি টোয়েন্টিসুলভ।

৭৬ রানে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে তাওহীদ হৃদয়। রিভিউ নিয়েও নিজের উইকেট বাঁচাতে পারলেন না তিনি।

সম্মানজনক একটা হারই যেনো প্রয়োজন তখন। তবে সেটা করতেও ব্যর্থ টাইগাররা। দলীয় স্কোর শয়ের ঘরে পৌঁছানোর আগেই ফের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। কুলদীপ যাদবের বলে রোহিতকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন সাকিব আল হাসান।

শান্তর ব্যাটে ৪০ রান এলো ঠিক তবে দলে এর প্রভাব শূন্য। ফিরলেন বুমরার বলে আর্শদীপকে ক্যাচ দিয়ে।

শেষের দিকে রিশাদের কয়েকটা ছক্কা ছিলো শুধুই উপভোগের খোরাক। শেষমেশ সেমির স্বপ্নের সমাধি, সেইসাথে ৫০ রানের বড় হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে টিম বাংলাদেশ।

spot_img
spot_img

আরও পড়ুন

spot_img

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

বিশেষ প্রতিবেদন