32 C
Dhaka
মঙ্গলবার, জুলাই ১৬, ২০২৪
spot_imgspot_img

যমুনার ভাঙন রোধে নেই স্থায়ী পদক্ষেপ, আতঙ্কে নদীপাড়ের বাসিন্দারা

জামালপুরে যমুনা নদীর পানি বৃদ্ধির সাথে শুরু হয়েছে তীব্র ভাঙন। গত দুই সপ্তাহে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার চিকাজানী ইউনিয়নে, নদীগর্ভে গেছে অর্ধশত বাড়ি ও ফসলি জমি। হুমকির মুখে দেড় হাজার পরিবার। স্থানীয়দের অভিযোগ, দীর্ঘদিনের দাবি হলেও ভাঙন রোধে স্থায়ী কোনো উদ্যোগ নেয়নি প্রশাসন।

জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার চিকাজানী ইউনিয়নের বরখাল গ্রামে দুই সপ্তাহ আগেও একটি সড়কসহ ছিলো অর্ধশতাধিক বাড়ি-ঘর। ছিলো কয়েক একর ফসলি জমি। কিন্তু পানি বাড়ার সাথে সাথে যমুনা তার বিধ্বংসী রুপ দেখানো শুরু করেছে।

যমুনার তীব্র ভাঙনে ইউনিয়নটির চর ডাকাতিয়া, কাজলাপাড়া, মণ্ডল বাজার, বরখাল, হাজারীগ্রামসহ ৭ কিলোমিটার ভাঙন দেখা দিয়েছে। গত দুই সপ্তাহে ৫০টি বাড়ি ভেঙে ১ হাজার ২শ’ পরিবার ভিটেমাটি হারা হয়েছে।

প্রতিদিনই নদীগর্ভে বিলীন হচ্ছে বসতবাড়ি, ফসলি জমি। ইতিমধ্যে একটি প্রাইমারি স্কুল, মসজিদ, মাদ্রাসা, ডাকাতিয়া গুচ্ছগ্রাম, আদর্শ গ্রামসহ ১০টি গ্রাম নদীগর্ভে গেছে।

গত কয়েকবছর ধরে এই অঞ্চলে ভাঙন দেখা দিলেও, রোধে কোন ব্যবস্থা নেয়নি প্রশাসন। করা হয়নি স্থায়ী কোন সমাধানও।

যমুনা, ব্রহ্মপুত্র ও ঝিমজিরাম বিধৌত এই উপজেলাকে টিকিয়ে রাখতে, শুধু জিও ব্যাগ ডাম্পিং নয়, স্থায়ী সমাধানের দাবি জনপ্রতিনিধির।

তবে পানি উন্নয়ন বোর্ড বলছে, স্থায়ী সমাধানের জন্য সমীক্ষা প্রকল্প প্রক্রিয়াধীন। বাস্তবায়ন হলে দ্রুত সময়ের মধ্যে কাজ শুরু হবে।

শুধু আশ্বাস নয়, দ্রুত কার্যকরী পদক্ষেপ দেখতে চান স্থানীয়রা।

spot_img
spot_img

আরও পড়ুন

spot_img

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

বিশেষ প্রতিবেদন